এনাইলেশন ২০১৮ মুভি রিভিউ | Annihilation 2018

এনাইলেশন( ২০১৮) এই বছরের শুরুর দিকে সবচেয়ে এক্সপেক্টেড সাইফাই মুভি। কিছু কথা আগে বলে নেই, মানুষের থ্রেট কি হতে পারে,অনেকগুলি উত্তরের মধ্যে প্রয়াত স্টিফেন হকিং এর একটা উত্তর ছিলো জেনেটিক্যালি মোডাফাইড ভাইরাস যেটা কিউরেবল না। মিউটেশনের নাম তো শুনেছেন, মানে চ্যাঞ্জিং দা স্ট্র‍্যাকচার অফ এ জিন, এই মিউটেশনে বিভিন্ন ফ্যাক্টরের মধ্যে প্রোটিন একটা ফ্যাক্টর আর তার মধ্যে বিশেষভাবে উল্লেখ করতে হয় হোক্স প্রোটিন যেটার উৎপত্তি হোক্স জিনস থেকে(এই জিনস আমাদের হেড টেইল এক্সিস বরাবর গঠনের সাথে জড়িত)।

এনাইলেশন গল্প আসলে একদল বিজ্ঞানীর ওয়ানওয়ে মিশনের যেখানে প্রকৃতির কোন সূত্রই প্রতিফলিত হয় না। সাউদার্ন রিচ ট্রিলজির প্রথম নভেলের উপর ভিত্তি করে বানানো এই মুভির শুরু হয় নার্টালি পোর্টমেন্টের একটা ইন্টারোগেশনের মধ্য দিয়ে। এই ইন্টারোগেশনই সম্পূর্ন মুভির ব্যাপ্তি যেখানে অনেকগুলি উত্তর সিনেমার প্লটকে ডিজাইন করেছে। ভিজ্যুয়েল ইফেক্টটা একটু নরমাল লাগল ব্লেড রানারের কাছাকাছিও না। ক্যারেকটার বিল্ডাপ কিছুটা কোয়াট ডিসিপয়েন্টিং, প্রফেশন ক্যাটাগোরাইস হিসেব করলে বোল্ড এক্টিং আশা করতেই পারি। শেষ বিশ মিনিট যে কোন সিনেমার সারমর্ম এইখানে এই মুভিতে লাস্ট সিকোয়েন্স যতেষ্ট হতবুদ্ধি করার মত ম্যাটিরিয়েলস আছে অডিয়েন্সকে।মাঝখানটা একটু স্লো মনে হতে পারে, দুটো শব্দে এই সিনেমার রিভিউ হতে পারে, আনপ্রিডেক্টেবল ন্যারিটিব বা ফ্যান্টাসি জার্নি। অথবা প্যাশোনোয়েট অর্ডিয়েন্সের জন্য ” আনফিল্মএবেল” বা ” টু ইন্টোলেকচুয়াল এবং জটিল”।

ফাইনালি, ফিকশন তো ফিকশন এইখানে সাইন্স কতদূর! নোলানের ইন্টারেস্টেলার কিছু কাছ নাসা কৃতক স্বীকৃত। এই সিনেমার বেলাই যদিও অর্ডিয়েন্স দুর্বোধ্য ধারনা পাবে তারপরেও বলি আমার প্রথম অংশে উল্লেখিত হোক্স জিনসই(সিনেমায় আছে) এই সিনেমার কিছুটা সাইন্স ফিকশন উত্তর। ইভালুয়েশন থিউরিতে যেভাবে ইউনিসেলুলার সেল থেকে মাল্টিসেলুলার সেলে ট্রান্সফরমেশন দেখানো হয় এইখানে সেই জিনিষটা দেখিয়েছে জেনেটিক মিউটেশনের ইটসেলফ রিপ্রোডাকশনের মাধ্যমে।যদি আমাদের ঠিকে থাকার মত ভবিষ্যৎ এ কিছু বাধা পাই তার মধ্যে থাকবে এই জেনেটিক মিউটেশন। যাই হোক সবার তেমন অন্যান্য সাইন্স ফিকশন মুভির মত ভালো লাগবে না প্লটের দুর্বোধ্যতার কারনে। ব্যক্তিগত রেটিং ৭.৫, আরেকটা রিভিউ দিলাম সাথে আগ্রহী হলে দেখতে পারেন এই সিনেমা।

মূল পোষ্টটি লিখেছেনঃ Kollol Dey 

ফেসবুক সিনামাখোরদের আড্ডা থেকে পোস্ট সংগৃহিত ।